মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

এক নজরে বিবিচিনি ইউনিয়ন

 

এক নজরে ১নং বিবিচিনি ইউনিয়ন পরিষদ

 

ইউনিয়ন পরিষদের  নাম

 ১নং বিবিচিনি ইউপি কার্যলয়

৪৮

গর্ভবর্তী মায়ের মৃত্যু হার

১%

আয়তন

 

৪৯

পঃ পঃ গ্রহনে সক্ষম দপ্তত্তি

 

গ্রাম সংখ্যা

 

৫০

ইপিআই কভারেজ

 

মৌজা

 

৫১

অগভির টিউবওয়েল সংখ্যা

 

জনসংখ্যা

 

৫২

হাট বাজারের সংখ্যা

 

পুরুষ

 

৫৩

ভিজিডি কার্ডধারী

২৪৪ জন

মহিলা

 

৫৪

বয়স্ক ভাতা ভোগী

৪০৩ জন

হিন্দু

 

৫৫

বিধবা ও স্বামী পরিত্যাক্তা ভাতা ভোগী

 

মুসলমান

 

৫৬

প্রতিবন্ধী ভাতা ভোগী

 

১০

খ্রিষ্টান

 

৫৭

পল্লী চিকিৎসক

 

১১

প্রতিবন্ধীর সংখ্যা

 

৫৮

হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসক

 

১২

মোট পরিবার সংখ্যা

 

৫৯

এমবিবিএস চিকিৎসক

 

১৩

শিক্ষার হার

 

৬০

ইঞ্জিনিয়ার

 

১৪

সঃ প্রাঃ বিঃ সংখ্যা

 

৬১

আইন জীবির সংখ্যা

 

১৫

রেজিঃ প্রাঃ বিঃ সংখ্যা

 

৬২

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক

 

১৬

মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়

 

৬৩

 রেজিঃ প্রাঃ বিদ্যালয়ের শিক্ষক

 

১৭

মাধ্যমিক বিদ্যালয়

 

৬৪

মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষক

 

১৮

এবতেদায়ী মাদ্রাসা

 

৬৫

মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক

 

১৯

ফোরকানিয়া মাদ্রাসা

 

৬৬

কলেজের শিক্ষক

 

২০

হাফেজিয়া মাদ্রাসা

 

৬৭

মাদ্রাসার শিক্ষক

 

২১

আলিম মাদ্রাসা

 

৬৮

সরকারী চাকুরী জীবি

 

২২

কলেজ

১টি

৬৯

বেসরকারী চাকুরী জীবি

 

২৩

কিন্ডারগার্ডেন

 

৭০

ন্যাশনাল সাভির্স কর্মচারী

 

২৪

এতিমখানা

 

৭১

বিদেশে চাকুরীরত

 

২৫

জামে মসজিদ

 

৭২

পুলিশ

 

২৬

পাঞ্জেগানা মসজিদ

 

৭৩

বিজিবি/বিডিআর

 

২৭

ঈদগা

 

৭৪

সেনাবাহিনী

 

২৮

মন্দির

 

৭৫

নৌবাহিনী

 

২৯

১ফসলি জমির পরিমান

 

৭৬

বিমানবাহীনি

 

৩০

২ফসলি জমি

 

৭৭

ব্যাবসায়ী

 

৩১

৩ফসলি জমি

 

৭৮

কামার

 

৩২

মিষ্টি পানির বাগদা ঘের

 

৭৯

কারিকর

 

৩৩

বনায়নকৃত রাস্তা

 

৮০

কালভার্ট/ব্রীজ

 

৩৪

ভূমিহীন পরিবার

 

৮১

পুকুর

 

৩৫

খাস জমির পরিমান

 

৮২

বিদ্যুতায়িত বাড়ী

 

৩৬

ভোটার সংখ্যা

 

৮৩

খেলার মাঠ

 

৩৭

মুক্তি যোদ্ধা

 

৮৪

সরকারী অফিস

 

৩৮

ভাতা প্রাপ্ত মুক্তি যোদ্ধা

 

৮৫

কর্মরত এনজিওর সংখ্যা

 

৩৯

প্রধানতম ফসল

 

৮৬

মুক্তিযোদ্ধা অফিস

 

৪০

খাল

 

৮৭

কমিউনিটি ক্লিনিক

 

৪১

শিশু জন্মহার

 

৮৮

মৎস্য অফিস

 

৪২

শিশু মৃত্যুহার

২%

৮৯

মোবাইল টাওয়ার

 

৪৩

ইট ভাটা

 

৯০

খেয়াঘাট

 

৪৪

ঐতিহাসিক মসজিদ

১টি ( শাহী মসজিদ)

৯১

রিকশার সংখ্যা

 

৪৫

স্ব-মিলের সংখ্যা

 

৯২

টমটমের সংখ্যা

 

৪৬

রাইস মিলের সংখ্যা

 

৯৩

ভাড়ায় চালিত মটর সাইকেলের সংখ্যা

 

৪৭

গির্জার সংখ্যা

 

৯৪

 

 

 

অবস্থানঃ

বিষখালী নদীর ঠিকানা,বাংলাদেশের ঐতিহাসিক বিবিচিনি শাহী মসজিদের ঠিকানা,

বরগুনা জেলার উত্তরের সীমানা যেথা গিয়েছে হারিয়ে,

সেথা বরগুনা রম্নপময়ে ঘেরা বনানীর কোলে দাড়িয়ে,

সবুজে শ্যামলে বিধাতার অপরূপ সাজে সজ্জিত নদী নালা বেষ্টিত,

বাংলাদেশের দক্ষিনে অবস্থিত বরগুনা জেলার বেতাগী উপজেলায় বিবিচিনি ইউনিয়নটি অবস্থিত।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

ইউনিয়নের উত্তরে বরিশাল জেলার বাকরগঞ্জ উপজেলার ১৪নং নিয়ামতি ইউনিয়ন, দক্ষিনে বরগুনা জেলার বেতাগী উপজেলার ২নং সদর ইউনিয়ন, পূর্বে পটুয়াখালী জেলার মির্জাগঞ্জ উপজেলার মাধবখালী ইউনিয়ন ও পূর্বে বিষখালী নদী যার উৎপত্তি মেখনা নদী এবং বিষখালী নদীটি বঙ্গপসাগরে পতিত হয়েছে। চিনি বিবির নাম অনুসারে এই ইউনিয়নের নাম হয়েছে বিবিচিনি। বিবিচিনি ইউনিয়ন পরিষদ স্থাপিত হয় ১৯৬১ খ্রিষ্টাব্দে। বিবিচিনি ইউনিয়ন পরিষদ কার্যলয়টি বর্তমানে অবস্থিত ইউনিয়নের ঠিক মধ্যস্থানে যার পূর্বে সাবেক ৩নং ওয়ার্ড, উত্তরে সাবেক ১নং ওয়ার্ড এবং ইউনিয়ন পরিষদটি বর্তমান ৪নং ওয়ার্ডে অবস্থিত। এই জায়গাটি যারা দান করেছেন তারা হলেন ১।

 

আয়তন ও সীমানাঃ

বিবিচিনি ইউনিয়নের মোট আয়তন ৫,৬৯২ একর । ইনিয়নের মোট গ্রামের সংখ্যা ৭ টি,  গ্রাম গুলো যথাক্রমেঃ বিবিচিনি, চরবিবিচিনি, দেশান্তারকাঠী, গাবুয়া পুটিয়াখালী, গড়িয়াবুনিয়া, ফুলতলা, তালগাছিয়া। ইউনিয়নে মোট মৌজার সংখ্যা ৬টি ।

 

জনসংখ্যাঃ

ইউনিয়নের মোট জনসংখ্যা ১৭,৫৩১ জন এবং পরিবারের সংখ্যা ৩,৭১৪ টি। পুরুষ জনসংখ্যা ৮,৫৪৯ জন এবং মহিলা জনসংখ্যা ৮,৯৮২ জন। ইউনিয়নে মোট ভোটর সংখ্যা ১১,০১১ জন।

 

সামাজিক অবস্থাঃ

বিবিচিনি ইউনিয়নে বিভিন্ন পেশাজীবি লোকের সমন্বয়ে বসবাস। কামার,কুমার, জেলে, ধোপা, নাপিত, চাষা, শিক্ষিত, অশিক্ষিত, সকলে একাত্মা নিয়ে বসবাস করে আসছে আবহমানকাল হতে। হিন্দু , মুসলমান ও খ্রিষ্টান এই তিন সম্প্রদায়ের লোকের সংখ্যা বেশী। ধমীর্য় ভাব গাম্ভীর্যের মাধ্যমে ঈদ, পুজা, বড়দিন, সামাজিক অনুষ্ঠান ও পিঠা-পার্বনের সকলে সকলের উদ্দিপনা নিয়ে পালন করে। সম্প্রদায়গত বিবেধ থাকলেও তাদের সামাজিক ও ধর্মীয় অনুষ্ঠানে মুসলিম কি হিন্দু কি খ্রিষ্টান কোন ভেদাভেদ নেই। ইউনিয়নের আপামর জনসাধারন অত্যন্ত সাচ্ছন্দ্যের সাথে সকলে ভাই ভাই, কাধে কাধ মিলিয়ে বসবাস করে আসছে।

 

শিক্ষা ব্যবস্থাঃইউনিয়নে শিক্ষার হারঃ  ৭০%। সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সংখ্যাঃ ১১টি। রেজিষ্টার/বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় আছেঃ ০৬টি। মাধ্যামিক বিদ্যালয়ঃ ০৬টি, বালিকা বিদ্যালয়ঃ ০১টি। কলেজঃ ০১টি। আলিম মাদ্রাসাঃ ০২টি সহ বিভিন্ন ধরনের-------- মাদ্রাসা আছে। কিন্ডারগার্ডেনঃ ০১টি। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজিং কমিটি ও স্থানীয় জনগনের সহযোগীতায় এলাকার শিক্ষা ব্যবস্থায় কিছু সমস্যা থাকলেও শিক্ষার উন্নয়ন মোটামোটি তরান্বিত হচ্ছে। সরকার উপবৃত্তি ব্যবস্থা চালু করার ফলে শিশু ও মেয়েদের শিক্ষার হার উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েছে। সরকারের পাশাপাশি বেসরকারী সংস্থাগুলোও শিশু শিক্ষা বৃদ্ধির জন্য অনেক ধরনের বিদ্যলয় প্রতিষ্ঠা করেছে। যার দরুন ইউনিয়নের শিশু শিক্ষার হার উল্লেখযোগ্য পরিমানে বৃদ্ধি পাচ্ছে । অনেক প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অবকাঠামোগত সমস্যা রয়েছে, অনেক প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ছাত্র/ছাত্রীদের উপযুক্ত খেলার মাঠ ও বিনোদনমূলক কর্মকান্ডের সুযোগ সুবিধার অভাব রয়েছে। এছাড়া নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশন সংক্রান্ত সমস্যা রয়েছে প্রায় প্রতিটি বিদ্যালয়ে। সেই সাথে রয়েছে প্রয়োজনীয় আসবাব পত্র ও শ্রেনী কক্ষের সংকট। এসবের মধ্য দিয়েও বিদ্যালয় গুলোর পাঠদান কার্যক্রম সঠিক ভাবে অব্যহত আছে।

কৃষিঃ

কৃষির প্রধান এই জেলার কৃষির অবস্থার দিক থেকে বিবিচিনি ইউনিয়নের অবস্থা বেশ ভাল। আবহাওয়া ও জলবায়ু আকস্মিক পরিবর্তন কৃষি ক্ষেত্রে বিরুপ প্রভাব ফেলছে। এ ইউনিয়নে এক ফসলি জমির পরিমান ২০০০(দুই হাজার) একর, দুই ফসলি জমির পরিমান ২২০০( দুই হাজার দুইশত) একর এবং পতিত জমির পরিমান ১৫(পনের) একর। ধান,পাট,সরিষা,আখ,বেগুন,আলু এই সকল ফসল অত্র ইউনিয়নে বেশ ফলান হয় তার মধ্যে ধান অত্র ইউনিয়নের প্রধান ফসল। তাছাড়া তাল, আম, পেয়ারা,নারিকেল, সুপারি, বাশ প্রভৃতির উৎপাদন বেশ ভাল। বর্ষা মৌসুমে জলাবদ্ধতা ও পানি নিষ্কাষনের অব্যবস্থা,সুকনো মৌসুমে খরা এবং কোন কোন বছর প্রাকৃতিক দূযোর্গ দ্বারা ফসল নষ্ট হওয়া কৃষি ক্ষেত্রে অন্যতম প্রধান সমস্যা।

নদী ও খালঃ

বিবিচিনি ইউনিয়টি বিষখালী নদীর পূর্ব পার্শে অবস্থিত। এই ইউনিয়নে অনেকগুলো খাল রয়েছে , সেগুলোর নাম যথাক্রমেঃ বিবিচিনি খাল বাড়ইর খাল, আসমত আলী খানের বাড়ী হইতে রমনীর বাড়ী পর্যন্ত খাল, সেরমান খার বাড়ির ঘাটের খাল,ফুলতলা খাল , গাবুয়া খাল, মুচিকাটা খাল, কালিয়া তলা খাল, কাটাখালী খাল, নাপিতের খাল,পুটিয়াখালী খাল,স্যানের খাল, কালিকা বাড়ীর খাল, নওয়াব আলী মোল্লার ঘাটের খাল,গড়িয়াবুনিয়া সঃ প্রঃ বিদ্যালয় হইতে পূর্ব গড়িয়াবুনিয়া সুলিজ পর্যন্ত খাল, পূর্ব গড়িয়াবুনিয়া মোল্লা বাড়ির খাল,কুলইতলার খাল,বৌসের খাল,গাইনের খাল,ফরাজির খাল,বোলার ধন খাল,সুলতান চৌকিদার বাড়ির খাল,বাবুরুল্লার খাল,তালগাছিয়া খাল,আকনের খাল, জুমির এর খাল,গীর্জার খাল,পাড়ের খাল, বিলের খাল, নয়া খাল,রুমজিদ খার খালইত্যাদি। কিছু কিছু খাল সংস্কার হলেও পূর্ণঃখনন করা আসু প্রয়োজন। এছাড়াও বিবিচিনি ইউনিয়নে কিছু কিছু ছোট ছোট খাল রয়েছে। এসকল খালের মধ্যে অনেক মাছের ঘের রয়েছে। বাকি খালগুলোতে জোড়ারের পানি আসা যাওয়া করে।

ধর্মীয় দিকঃ

ইউনিয়নের ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের মধ্যে রয়েছে ৩৪ টি মসজিদ।

৫টি ঈদগা রয়েছে। ছোট বড় মন্দির রয়েছে ১০ টি। গির্জা রয়েছে ১টি। এ সকল ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানগুলির অবকাঠামোগত সংস্কার প্রয়োজন। যেমনঃ ঘর নির্মাণ ও সংস্কার, প্রতিষ্ঠান সংলঘ্ন চত্তর মাটি ভরাট, বাউন্ডারি সিমানা, বৃক্ষ রোপন, বৈদ্যুতিক ব্যবস্থা এবং ধর্মীয় বই পুস্তাক সরবরাহের প্রয়োজন।

 

মৎস্য সম্পদঃ

আমাদের ইউনিয়নে ১৫৫ জন জেলে রয়েছে যারা বিষখালী নদীতে মাছ ধরে জীবিকা নিবার্হ করে। বিবিচিনি ইউনিয়নে ছোট বড় অনেক পুকুর রয়েছে যাতে কিছু সাধারন লোক মাছ চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করছে। এছাড়াও কিছু কিছূ লোক খালে মাছের চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করছে।

 

জনস্বাস্থ্যঃ

বেতাগী উপজেলার অন্যান্য ইউনিয়নের চেয়ে বিবিচিনি ইউনিয়নের জন-স্বাস্থ্যের অবস্থা উন্নতির দিকে। এ ইউনিয়নে ৯০% সেনিটেশন কভারেজ ছাড়াও অত্র ইউনিয়নে বেতাগী উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও কমিউনিটি ক্লিনিক রয়েছে। বিশুদ্ধ পানির জন্য গভীর নলকূপ রয়েছে ২০০টি।

 

সড়ক ও যোগাযোগঃ

বিবিচিনি ইউনিয়নে গ্রামীন সড়ক যোগাযোগ বর্তমানে খুব খারাপ থাকলেও  অধিকাংশ রাস্তাঘাট ইতিমধ্যে কাপের্টিং সহ ইটের সলিং করার পরিকল্পনা সহ কাজ চলছে। ইউনিয়নের পশ্চিম প্রান্ত দিয়ো বরগুনা-বরিশাল মহাসড়ক হওয়ায় যাতায়াতে অল্প কিছু জনগন বিশেষ সুযোগ সুবিধা পেলেও অধিকাংশ জনগন তাদের নিজ এলাকায় পৌছাতে বেশ সময় লাগে। যদি মহাসড়কটি ইউনিয়নের মধ্যদিয়ে হত তাহলে বিবিচিনি ইউনিয়নের সকল জনগন বিশেষ সুযোগ সুবিধা পেত। বর্তমানে মহাসড়ক থেকে ইউনিয়ন পরিষদ কার্যলয়ের যোগাযোগ খুব খারাপ। আধুনিক যোগাযোগের জন্য অত্র বিবিচিনি ইউনিয়নে তথ্য সেবা কেন্দ্র রয়েছে।

 

 

হাট বাজারঃ

ইউনিয়নে হাট বাজার রয়েছে ৯ টি। যথাক্রমেঃ ডিসির হাট, পল্লীমঙ্গল বাজার, এমপির হাট, গাড়িয়াবুনিয়া বাজার, পুটিয়াখালী বাজার, ফুলতলা বাজার, শান্তিনগর(দরগির চর) বাজার, কাটাখালী বাজার, বিবিচিনি পানের বাজার। হাট বাজার গুলোকে কাজে লাগিয়ে কৃষি পন্য বিপননের মাধ্যমে কৃষকদের ন্যয্য মূল্য পাওয়ার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখতে পারে।

 

অন্যান্য দিকঃ

নারী সম অধিকারের নীতিমালা থাকলেও ইউনিয়নের অনেক নারী বহূদিন থেকে অধীকার বঞ্চিত। ধর্মীয় কুসংস্কার ও সামাজিক বিধিনিষেধে,অসচেতনতা ও উদ্যোগ না নেওয়ার কারনে এরা বিভিন্ন ভাবে নির্যাতিত হচ্ছে। ইউনিয়ন পরিষদের মাধ্যমে এ পর্যন্ত সেলাই প্রশিক্ষন, ফলজ গাছ বিতরন সহ আরও অনেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন হয়েছে। তারপরও যদি সম্মিলিত প্রচেষ্টা নেওয়া যায় তবে পারিবারিক নির্যাতন সহ অন্যান্য বিষয় গুলি সমাধা করা সম্ভব। তাছাড়া যাদের আয় রোজগার করার মত মানুষ নেই সেই এতিম,বিধবা,স্বামী পরিত্যাক্তদের মানবেতর জীবনজাপনের হাত থেকে নিবৃত করার প্রচেষ্টা নেওয়া যেতে পারে। অন্যদিকে বিবিচিনি ইউনিয়নে প্রতিবন্ধী মানুষ আছে। শিক্ষা, স্বাস্থ্য সহ সকল দিকে লক্ষ্য রাখা ছাড়াও বিভন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের পাশাপাশি বিনোদনের জন্য বিবিচিনি ইউনিয়ন সাংস্কৃতিক পরিষদ গঠন ও বিবিচিনি ইউনিয়ন বিনোদন পার্ক নির্মানের পরিকল্পনা রয়েছে।

 

গ্রামভিত্তিক লোকসংখ্যা

 

বিবিচিনি গ্রাম

চর বিবিচিনি

গাবুয়া পুটিয়াখালী গ্রাম

দেশান্তরকাঠী গ্রাম

গড়িয়াবুনিয়া

 

ফুলতলা গ্রাম

 

পুরুষ

মহিলা

 

পুরুষ

মহিলা

পুরুষ

মহিলা

পুরুষ

মহিলা

পুরুষ

মহিলা

পুরুষ

মহিলা

 

২৮২১

২৯৮২

৩২

২৭

৩৭২

৩৬৪

২১৯৮

২৩৩৫

৯৮৩

১০৫৫

১৯০৭

১৯৮৮

তালগাছিয়া

 

পুরুষ

মহিলা

 

২৩৬

২৩১

 

ছবি

Map Bibichini Union ২.jpg Map Bibichini Union ২.jpg



Share with :

Facebook Twitter